মুক্তিযোদ্ধা আতিক হত্যা মামলার রায় পেছালো

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : মুক্তিযোদ্ধা আতিক উল্ল্যাহ চৌধুরী হত্যা মামলার রায় রোববার (১৮ অক্টোবর) ঘোষণার দিন ধার্য থাকলেও রায় প্রস্তুত না থাকায় সেটি পিছিয়ে দেওয়া হয়েছে। নতুন তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে ১৬ নভেম্বর।

জানা গেছে- ঢাকার কেরানীগঞ্জ উপজেলার কোন্ডা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতা ও মুক্তিযোদ্ধা আতিক উল্ল্যাহ চৌধুরী হত্যা মামলার রায়ের নতুন দিন ধার্য করেন ঢাকার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিচারক আবু জাফর মো. কামরুজ্জামান।

২০১৩ সালের ১০ ডিসেম্বর নিখোঁজ হন কেরানীগঞ্জ উপজেলার কোন্ডা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগের সাবেক আহ্বায়ক মুক্তিযোদ্ধা আতিক উল্ল্যাহ চৌধুরী।

নিখোঁজের পরেরদিন দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের দোলেশ্বর এলাকার একটি হাসপাতালের পাশ থেকে তার আগুনে পোড়া বিকৃত মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। আসামিরা তাঁকে হত্যা করে এবং মরদেহ গুম করার উদ্দেশে পুড়িয়ে ফেলে রাখে বলে মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়।। পরে তার সঙ্গে থাকা কাগজ ও এটিএম কার্ড দেখে লাশ শনাক্ত করেন নিহত আতিক উল্ল্যাহর ছেলে সাইদুর রহমান ফারুক চৌধুরী।

বিজ্ঞাপন

এ ঘটনায় তার ছেলে সাইদুর রহমান ফারুক চৌধুরী বাদি হয়ে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলাটির তদন্ত শেষে ৮ জনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন পুলিশ।

আসামিরা হলেন- গুলজার হোসেন, শম্পা, আশিক, শিহাব আহমেদ ওরফে শিবু, আহসানুল কবির ইমন, তাজুল ইসলাম তানু, জাহাঙ্গীর খাঁ ওরফে জাহাঙ্গীর এবং রফিকুল ইসলাম ওরফে আমিন ওরফে টুন্ডা আমিন।

এদের মধ্যে শম্পা, জাহাঙ্গীর ও আহসানুল কবীর কারাগারে আছেন। অপর আসামিরা পলাতক।

এ বিষয়ক : মুক্তিযোদ্ধা আতিক হত্যা মামলার রায় আজ

Facebook Comments Box

Leave a Reply

Your email address will not be published.