ডিসেম্বর ৫, ২০২১

The Bangla Kagoj

বিশ্বের সব দেশে, সব ভাষায়, সব সময় । বাংলা কাগজ । আপনার কাগজ । banglakagoj.net (আমাদের কোনও জাতীয় পত্রিকা নেই)।

পলক : সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারে সতর্ক থাকুন

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন- শিক্ষার্থীদের ইন্টারনেট ও ফেসবুকের পাসওয়ার্ড প্রদান ও সামাজিক মাধ্যমে কিছু শেয়ার করার বিষয়ে অত্যন্ত সতর্ক থাকতে হবে। তা না হলে চরম অসুবিধার মধ্যে পড়তে হবে। তিনি পরিচয় যাচাই না করে ফ্রেন্ড রিকুয়েস্ট গ্রহণ না করার জন্য শিক্ষার্থীদের প্রতি আহ্বান জানান।

প্রতিমন্ত্রী বৃহস্পতিবার (৮ অক্টোবর) সিংড়া দমদমা পাইলট স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে ‘ডিজিটাল নিরাপত্তায় মেয়েদের সচেতনতা’ শীর্ষক ওয়েবিনারে যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

পলক বলেন- বর্তমানে দেশে প্রায় ৭০ শতাংশ কিশোরি সাইবার ক্রাইমের শিকার হচ্ছে। সাইবার অপরাধে শিকার হওয়া কিশোরিদের মানসিক ভাবে ভেঙ্গে না পড়ার পরামর্শ দিয়ে তিনি বলেন- কেউ যদি এ ধরনের পরিস্থিতির শিকার হয় তাহলে ৯৯৯ ফোন করে পুলিশের সহায়তা নিতে পারে।

‘কারও ফেসবুক হ্যাক হলে তাঁদের প্রযুক্তি ও আইনগত সহায়তা দিতে শিগগিরই আইসিটি বিভাগের অধীনে সাইবার সিকিউরিটি হেল্প ডেস্ক প্রতিষ্ঠা করা হবে’

বিজ্ঞাপন

প্রতিমন্ত্রী বলেন- সম্প্রতি বিভিন্ন এলাকায় নারী নির্যাতনের ঘটনা ঘটছে। সামাজিক আন্দোলনের মাধ্যমে অপরাধীদের প্রতিরোধ ও ব্যক্তি সচেতনতা বাড়াতে হবে। পাশাপাশি পারিবারিক ও প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা গ্রহণ করতে হবে। এ বিষয়ে আমাদের সন্তানদের মূল্যবোধ জাগ্রত করতে শিক্ষক, অভিভাবকসহ সকলকে সচেতন হতে হবে। বিশেষ করে সন্তানেরা ডিজিটাল প্লাটফর্মে কখন, কার সঙ্গে যুক্ত হচ্ছে সে বিষয়ে খোঁজ রাখতে হবে। এছাড়া আইনের কঠোর প্রয়োগের মাধ্যমে শাস্তি নিশ্চিত করা অপরাধ দমনে বিশেষ ভূমিকা রাখবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক আরও বলেন- সাইবার স্পেস নিরাপদ রাখতে চারটি পূর্বশর্ত নিশ্চিত করতে হয়। সেগুলো হচ্ছে- ব্যক্তিগত পর্যায়ে সচেতনতা তৈরি, পারিবারিক ও প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা প্রদান, প্রযুক্তিগত সক্ষমতা এবং আইনের কঠোর প্রয়োগ। তিনি সত্য-মিথ্যা যাচাই করেই ইন্টারনেটে শেয়ার করার জন্য সকলের প্রতি আহ্বান জানান।

ওয়েবিনারে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলম, সি সি এ নিয়ন্ত্রক আবু সাঈদ চৌধুরী, সিংড়া দমদমা পাইলট স্কুল অ্যান্ড কলেজের অধ্যক্ষ আনোয়ার ইসলাম আনু।

ওয়েব সেমিনারের মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন সি সি এ উপনিয়ন্ত্রক হাসিনা বেগম।

এ বিষয়ক : নসরুল হামিদ : অংশীজনদের সঙ্গে নিয়েই প্রযুক্তিগত পরিবর্তন করতে হবে

তথ্যপ্রযুক্তিতে দক্ষতা বাড়াতে ৫ হাজার ডিজিটাল ল্যাবসহ ৭ প্রকল্পের অনুমোদন

Facebook Comments Box