জানুয়ারি ২৯, ২০২২

বাঙলা কাগজ

The Bangla Kagoj । সবচেয়ে বেশি দেশে, সবচেয়ে বেশি ভাষায়। বাঙলা কাগজ । আপনার কাগজ । banglakagoj.net (আমাদের কোনও জাতীয় পত্রিকা নেই)।

দোরাইস্বামী : দু’দেশের সম্পর্ক অভিন্ন ত্যাগ ও সংস্কৃতির ওপর ভিত্তি করে রচিত

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : বাংলাদেশ-ভারত এ দুই দেশের সম্পর্ক অভিন্ন ত্যাগ, ইতিহাস ও সংস্কৃতির ওপর ভিত্তি করে রচিত- এমন মন্তব্য করেছেন বাংলাদেশে ভারতের নয়া রাষ্ট্রদূত বিক্রম কুমার দোরাইস্বামী।

বৃহস্পতিবার (৮ অক্টোবর) রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের কাছে নিজের পরিচয়পত্র পেশ শেষে সন্ধ্যায় গুলশানে ইন্ডিয়ান হাউসে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে এমন মন্তব্য করেন তিনি।

রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের কাছে তাঁর বাসভবন- বঙ্গভবনে বৃহস্পতিবার (৮ সেপ্টেম্বর) নিজের পরিচয়পত্র পেশ করেন ভারতের নয়া রাষ্ট্রদূত বিক্রম কুমার দোরাইস্বামী- পিআইডি’র সৌজন্যে বাংলা কাগজ।

বিক্রম দোরাইস্বামী বলেন- আমি দৃঢ়ভাবে বলতে চাই, বাংলাদেশ সবসময় ভারতের অত্যন্ত বিশেষ অংশীদার ছিল, আছে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে। আমাদের বন্ধুত্ব কৌশলগত অংশীদারিত্বের অনেক ঊর্ধ্বে। কারণ এই বন্ধুত্ব রচিত হয়েছে অভিন্ন ত্যাগ, ইতিহাস, সংস্কৃতি এবং আত্মীয়তার অনন্য সম্পর্কের ওপর ভিত্তি করে। বাংলাদেশকে ভারত সর্বোচ্চ স্তরের গুরুত্ব দেয় এবং এটি কখনোই হ্রাস পাবে না।

ভারতের রাষ্ট্রদূত বলেন- আমরা খুব শিগগিরই প্লেন চলাচল শুরু করার জন্য একটি বিশেষ এয়ার বাবল ব্যবস্থা চালু করব। আমরা কোভিড মোকাবিলায় যৌথভাবে কাজ করার জন্য প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির প্রত্যাশা পূরণে আমি এবং আমার সহকর্মীরা যথাসাধ্য চেষ্টা করব।

বিজ্ঞাপন

বিক্রম দোরাইস্বামী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বের প্রশংসা করে বলেন- প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে অর্থনৈতিক সাফল্য বা ক্রিকেট পিচে টাইগারদের অপ্রতিরোধ্য মনোবলসহ অন্যান্য বিষয় সারাবিশ্ব বাংলাদেশকে নতুন সম্মানের সঙ্গে দেখছে। আমরা আপনাদের নিকটতম প্রতিবেশি হিসেবে এই উপযুক্ত স্বীকৃতিতে আনন্দিত।

বাংলাদেশের উন্নতির কথা তুলে ধরে বিক্রম দোরাইস্বামী আরও বলেন- সামাজিক সূচকে উল্লেখযোগ্য উন্নতির জন্য বাংলাদেশ আজ সমানভাবে সম্মানিত। একইভাবে দক্ষিণ এশিয়ায় দ্রুততম গতিতে আপনাদের টেকসই অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিকে আমরা অভিনন্দন জানাই।

সীমান্ত হত্যা সংক্রান্ত এক প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন- একটি মৃত্যুও কাঙ্ক্ষিত নয়। এ সমস্যা সমাধানে বিভিন্ন দিক থেকে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। আমিও আমার দিক থেকে চেষ্টা করে যাব।

শুরুতে বিক্রম দোরাইস্বামী সবাইকে বাংলায় শুভেচ্ছা জানিয়ে বলেন,- আমি বাংলা ভালো বলতে পারি না, এজন্য দুঃখিত। তবে বাংলা বুঝতে পারি। বাংলাদেশে থাকতে বাংলা ভালো করে শিখে নেব।

এ বিষয়ক : ভারতের নতুন হাই কমিশনার বাংলাদেশে এলেন পায়ে হেঁটে

বিক্রম দোরাইস্বামী ঢাকায় আসতে পারেন সোমবার

Facebook Comments Box

বাংলা কাগজ এ আপনাকে স্বাগতম।

X
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial
Facebook91m
Twitter38m
LinkedIn4m
LinkedIn
Share
Contact us