কালাম আঝাদের কলাম : এখন শিক্ষার্থীদের ছবি পোড়ানোর সময়, নাকি পরীক্ষা দেবার?

এখন শিক্ষার্থীদের ছবি পোড়ানোর সময়; নাকি পরীক্ষা দেবার? এর উত্তর কে দেবে?

দেশের সকল মন্ত্রণালয়, সংস্থা, বিভাগ ও প্রতিষ্ঠানের সবাই কি অথর্ব? নাকি শিক্ষামন্ত্রী বুঝেও না বোঝার চেষ্টা করছেন।

এ অবস্থায় সবকিছু চালু থাকার পরও শুধু শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কেন বন্ধ থাকবে? শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার পরও শিক্ষার্থীরা কি ঘরে রয়েছে? নাকি স্বাস্থ্যবিধির তোয়াক্কা করছে। তারা তো এখন মাঠে- আন্দোলনে। হ্যাঁ, আন্দোলন ভালো। কিন্তু পড়াশোনা শিকেয় তোলে!

মাননীয় শিক্ষামন্ত্রীর উদ্দেশে এর আগে লেখা একটি কলামও যখন উনার ঘুম ভাঙ্গাতে পারে নি; তখন সেই কলামের কথা স্মরণ করেই বলতে চাই- শিক্ষামন্ত্রী নারী হয়েও যতোগুলো ডিগ্রি অর্জন করেছেন; বর্তমান বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে আর কয়টি মেয়ে তা পারবে? সময় কি আছে যথার্থ? নাকি শিক্ষার্থীদের সেশনজটে ঠেলে দিচ্ছি আমরাই।

আজ (৭ অক্টোবর- বুধবার) ইউনিসেফের একটি প্রতিবেদন দেখলাম- সেখানে বলা হয়েছে, বাল্য বিয়ের দিক থেকে দক্ষিণ এশিয়ায় বাংলাদেশ প্রথম। সম্পাদকীয় নীতির কারণে আমরা ওই খবর প্রকাশ করি নি। কিন্তু কলাম লিখতে গিয়ে সঙ্গত কারণেই উল্লেখ করা হলো। কারণ দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ থাকায় একের পর এক মেয়েরা বাল্য বিয়ের শিকার হচ্ছে।

আজ (৭ অক্টোবর- বুধবার) আবার উচ্চ মাধ্যমিকের ফলাফল নিয়েও শিক্ষামন্ত্রী যে বক্তব্য দিয়েছেন, তাতেও আমরা হতাশ। কারণ এ ধরনের উদ্যোগ শিক্ষার্থীদের উচ্চশিক্ষা নিয়ে বড় ধরনের বুদবুদ তৈরি করবে বলেই মনে করা হচ্ছে।

কারণ উচ্চশিক্ষায় উচ্চ মাধ্যমিকের পড়াশোনা বেশ জরুরি।

বিজ্ঞাপন

সবমিলে এখন আমার বলতে ইচ্ছে হচ্ছে- আসুন, আমরা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ন্যায় সবকিছুই বন্ধ করে দিই।

না হয় মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী, আপনি খুলে দিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান।

এবার প্রধানমন্ত্রীকে বলব- আমরা যাঁরা বিশ্ববিদ্যালয় তথা ছাত্রজীবনে ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত ছিলাম; আপনি তাঁদের মা। তাই আপনার ছবি পোড়ানো আমার কাছে সত্যিই দুঃসহ মনে হয়েছে।

আসলে অলস মস্তিষ্ক শয়তানের আড্ডাখানা। সেই আড্ডাখানা নষ্ট করে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার ব্যাপারে এবার মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনি স্বয়ং উদ্যোগ নেবেন বলেই আমরা আশা করছি।

সকলকে ধন্যবাদ। আপনার কাছে ক্ষমা চেয়ে শেষ করছি মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।

এ বিষয়ক : হ্যাঁ, আপনাকেই বলছি মাননীয় শিক্ষামন্ত্রী (ডা. দীপু মনি, এমপি, এমবিবিএস (ডিএমসি), এলএলবি

Facebook Comments Box

Leave a Reply

Your email address will not be published.