জুলাই ২৪, ২০২১

The Bangla Kagoj

আপনার কাগজ । banglakagoj.net

প্রধানমন্ত্রীর প্রত্যাশা দেশের মানুষের জন্য ভালো কিছু করার

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশ ও জনগণের জন্য আরও ভালো কিছু করে যাওয়ার আকাঙ্ক্ষা পুণর্ব্যক্ত করেছেন।

সোমবার (২৮ সেপ্টেম্বর) সকালে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকে মন্ত্রিপরিষদ সদস্যরা প্রধানমন্ত্রীকে ৭৪তম জন্মদিনের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানালে শেখ হাসিনা তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় ওই প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বাবা-মা সব হারিয়ে রিক্ত, নিঃস্ব হয়ে এই দেশে কাজ করা, এটা খুবই কঠিন কাজ। কিন্তু তারপরেও শুধু একটা কথা চিন্তা করেছি- যে দেশটাকে এবং দেশের মানুষকে আমার বাবা এতো ভালবেসেছেন, তাঁদের জন্য আমাকে কিছু করে যেতে হবে। তাঁর (জাতির পিতা) স্বপ্নটা যেন অপূর্ণ না থাকে সেটা যেনও পূর্ণ করতে পারি।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার নিয়মিত বৈঠকটি ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত হয়। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে গণভবনপ্রান্ত থেকে প্রধানমন্ত্রী এবং সচিবালয়ের মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে মন্ত্রীরা বৈঠকে যোগ দেন।

শেখ হাসিনা বলেন- ‘বাংলাদেশের মানুষ যেন বিশ্ব দরবারে মাথা উঁচু করে চলতে পারে, সেটাই জাতির পিতা করতে চেয়েছিলেন, ছোটবেলা থেকেই তাঁর এই আকাঙ্ক্ষাটা আমরা জানি, শুনেছি। সে কারণেই আপ্রাণ চেষ্টা করে যাচ্ছি- এই দেশটাকে যেন জাতির পিতার স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ হিসেবে গড়ে তুলতে পারি।’

‘দেশের মানুষ যেন বিশ্বদরবারে মাথা উঁচু করে চলতে পারে ওইটুকুই আমার প্রচেষ্টা আর কিছু না,’ বলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘সকলকে আমি ধন্যবাদ জানাচ্ছি, কারণ, সকলের সহযোগিতাতেই বাংলাদেশটাকে আমরা এগিয়ে নিয়ে যেতে পারছি।’

শেখ হাসিনা বলেন- হয়তো এই করোনাভাইরাসটা না আসলে আমরা আরও অনেক কাজ করতে পারতাম। তারপরেও যতো বাধা বিঘ্নই আসুক সেটা অতিক্রম করবার মতো ক্ষমতা বাংলাদেশের মানুষ রাখে। সেজন্য বাংলাদেশের মানুষের প্রতি আমি কৃতজ্ঞতা জানাই।

শেখ হাসিনা তাঁর ৭৪তম জন্মদিনে সকলের কাছে দোয়া প্রত্যাশা করে বলেন- ‘সকলের কাছে দোয়া চাই, যতদিন বেঁছে আছি যেন সম্মানের সঙ্গে বাঁচতে পারি। আর আমার কাজ দ্বারা বাংলাদেশের মানুষের যেন উপকৃত হয় এবং মানুষ যেন ভল থাকে সেই কাজটুকু যেনও করতে পারি।’

প্রধানমন্ত্রী অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমের মৃত্যুতে এ সময় গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করে শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান এবং বলেন- ‘তাঁর জ্ঞান, প্রজ্ঞা ও মেধা রাষ্ট্রের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ছিল। তাঁর মৃত্যু আমাদের তথা রাষ্ট্রের জন্য একটা বিরাট ক্ষতি।’

বিজ্ঞাপন

মাহবুবে আলমের কর্মময় জীবনের ওপর আলোকপাত করতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন- ‘তিনি অত্যন্ত ঠাণ্ডা মাথায় এবং ধীরস্থিরভাবে সবকিছু বিবেচনা করতেন। অনেক জটিল মামলার তিনি ভালোভাবে সমাধান করেছিলেন। গত কয়েকটা বছরে অনেক চড়াই-উৎড়াই পার হয়ে আমরা এই জায়গাটায় এসেছি। এ সময় বিভিন্ন ঘাত-প্রতিঘাত যথাযথভাবে মোকাবিলা করেই তিনি তাঁর ওপর অর্পিত দায়িত্ব পালন করেছেন।’

শেখ হাসিনা আরও বলেন- ‘রাষ্ট্রের প্রধান আইন কর্মকর্তা হিসেবে তিনি অত্যন্ত সফলতার সঙ্গে কাজ করে গেছেন। আমরা তাঁর আত্মার মাগফিরাত কামনা করি এবং তাঁর শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি আমার সমবেদনা জানাচ্ছি।’

‘আমরা চেষ্টা করেছিলাম কিন্তু দুর্ভাগ্য যে, মাহবুবে আলম আমাদের ছেড়ে চলে আজকে গেলেন। তাঁর শূন্যস্থান পূরণ করা কঠিন একটা কাজ। আমরা গভীর শোক জানাচ্ছি এবং মন্ত্রিসভার পক্ষ থেকে আমরা শোক প্রস্তাব গ্রহণ করেছি,’ যোগ করেন তিনি।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জ্যেষ্ঠ সন্তান, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২৮ সেপ্টেম্বর ৭৩ পেরিয়ে ৭৪ বছরে পা দিয়েছেন।

১৯৪৭ সালে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জন্মগ্রহণ করেন তিনি।

এ বিষয়ক : আমাদের মা-আমাদের বোন ও আমাদেরই কন্যা শেখ হাসিনা

শুভ জন্মদিন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী : বাংলা কাগজ পরিবার

Facebook Comments Box

Call Now ButtonContact us

বাংলা কাগজ এ আপনাকে স্বাগতম।

X
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial
Facebook91m
Twitter38m
LinkedIn4m
LinkedIn
Share