প্রণব মুখোপাধ্যায়ের মৃত্যুতে শোকাচ্ছন্ন রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রী, বুধবার রাষ্ট্রীয় শোক

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : ভারতের প্রথম বাঙালি রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের (মুখার্জি) মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সোমবার (৩১ আগস্ট) আলাদা বার্তায় তাঁরা এ শোক জানান।

শোক বার্তায় শ্রী প্রণব মুখোপাধ্যায়ের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনার সঙ্গে তাঁর শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতিও গভীর সমবেদনা জানানো হয়।

শোকবার্তায় বলা হয়- বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধে একজন রাজনীতিক ও আমাদের পরম সুহৃদ হিসেবে প্রণব মুখার্জির অনন্য অবদান কখনও বিস্মৃত হবার নয়। আমরা সব সময় মুক্তিযুদ্ধে তাঁর অসামান্য অবদান শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরণ করি।

একদিনের রাষ্ট্রীয় শোক : প্রণব মুখোপাধ্যায়ের মৃত্যুতে বুধবার (২ সেপ্টেম্বর) রাষ্ট্রীয়ভাবে একদিনের শোক পালন করবে বাংলাদেশ। সোমবার (৩১ আগস্ট) রাতে এক সরকারি তথ্যবিবরণীতে এ কথা জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞাপন

এতে বলা হয়- সরকার ভারতের সাবেক রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির মৃত্যুতে শ্রদ্ধা জানিয়ে ২ সেপ্টেম্বর (বুধবার) একদিনের রাষ্ট্রীয় শোক ঘোষণা করেছে। এদিন জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হবে।

প্রসঙ্গত, মস্তিষ্কের অস্ত্রোপচারের পর তিন সপ্তাহের বেশি সময় ধরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকাকালীন সোমবার (৩১ আগস্ট) বিকেলে নয়াদিল্লির আর্মি রিসার্চ অ্যান্ড রেফারাল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান প্রণব মুখোপাধ্যায়।

এর আগে গত ১০ আগস্ট প্রণব মুখোপাধ্যায়ের মস্তিষ্কে অস্ত্রোপচার হয়। তারপর থেকেই গভীর কোমায় আচ্ছন্ন হন তিনি। আর ১০ তারিখেই সেনা হাসপাতালে ভর্তি হন তিনি। সার্জারির আগে তাঁর করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফলও পজিটিভ আসে। নিজেই টুইট করে সেই কথা জানিয়েছিলেন প্রণব।

এছাড়া ফুসফুসে সংক্রমণ এবং রেনাল ডিসফাংশনের সমস্যাও দেখা দেয় শ্রী প্রণব মুখোপাধ্যায়ের। এরপর থেকেই ভারতরত্ন প্রণব মুখোপাধ্যায়কে নিয়ে দুশ্চিন্তা বাড়তে থাকে দেশবাসীর মনে। জানানো হয়- ফুসফুসে সংক্রমণের কারণেই প্রণব মুখোপাধ্যায়ের শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়েছে।

Facebook Comments Box

Leave a Reply

Your email address will not be published.