ভাঙ্গছে একের পর এক বাঁধ : গোবিন্দগঞ্জে প্লাবিত ২০ গ্রাম

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : দেশজুড়ে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হচ্ছে প্রতিনিয়ত। এক্ষেত্রে ভাঙ্গছে একের পর এক বাঁধ। এরই অংশ হিসেবে গোবিন্দগঞ্জে বাঁধ ভেঙ্গে প্লাবিত হয়েছে অন্তত ২০টি গ্রাম।

ভুক্তভোগী ও সাধারণ মানুষ বলছে- বছরের পর বছর নদীর বাঁধ বাধা হয়। কিন্তু সেগুলো আর থাকে না। কিন্তু একটু যত্নবান হলেই বাঁধগুলো টেকসই করে বাধা সম্ভব। সম্ভব রক্ষা করা।

বিজ্ঞাপন

জানা গেছে- ব্রহ্মপুত্র, ঘাঘট ও করতোয়া নদীর পানি এখন বিপৎসীমার অনেক উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। এতে গাইবান্ধা জেলার সার্বিক বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত রয়েছে। এদিকে করতোয়া নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় বাঙালী নদীর বোচাদহ গ্রামে বাঁধ ভেঙ্গে নতুন নতুন এলাকা বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে। ফলে গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার মহিমাগঞ্জ, রাখালবুরুজ ও কোচাশহর ইউনিয়নের বোচাদহ, বালুয়া, ছয়ঘরিয়া,শ্রীপতিপুর, কুমিড়াডাঙা, পুনতাইর, পাছপাড়া, গোপালপুর, জিরাই, সোনাইডাঙ্গা, হরিনাথপুর-বিশপুকুর, কাজিরচক, পচারিয়া, মাদারদহ, কাজিপাড়া, ফরিকরপাড়া, পানিয়াসহ ২০টি গ্রাম প্লাবিত হয়ে ফসলের ব্যাপক ক্ষতির আশঙ্কা রয়েছে।

স্থানীয়দের অভিযোগ- গাইবান্ধা পানি উন্নয়ন বোর্ডের উদাসীনতায় দেরিতে কাজ শুরু হওয়ায় বাঁধটি ভেঙ্গে গেছে।

Facebook Comments Box

Leave a Reply

Your email address will not be published.