জুলাই ২৪, ২০২১

The Bangla Kagoj

আপনার কাগজ । banglakagoj.net

ইতিহাসের এই দিনে : শুভ জন্মদিন জ্যোতি বসু ও সৌরভ গাঙ্গুলি

বাংলা কাগজ লোগো।

৮ জুলাই ২০২০, বুধবার। ২৫ আষাঢ় ১৪২৭ বঙ্গাব্দ। আজকের এইদিনে জন্ম নেন ভারতীয় বাঙালি কমিউনিস্ট নেতা ও পশ্চিমবঙ্গের নবম মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসু এবং ভারতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক ও ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) বর্তমান সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলী।

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : ইতিহাস মানুষকে হাসায়, কখনও বা কাঁদায় অবিরাম। কিন্তু আমাদের সেই ইতিহাস নিয়েই চলতে হয়। সেই ইতিহাস নিয়ে চলতে চলতে আমাদের বলতে হয় সেই ইতিহাসের কথাই।

৮ জুলাই ২০২০, বুধবার। ২৫ আষাঢ় ১৪২৭ বঙ্গাব্দ। আজকের এইদিনে জন্ম নেন ভারতীয় বাঙালি কমিউনিস্ট নেতা ও পশ্চিমবঙ্গের নবম মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসু এবং ভারতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক ও ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) বর্তমান সভাপতি সৌরভ গাঙ্গুলী।

ঘটনা :
১৪৯৭- পর্তুগিজ অভিযাত্রী ভাস্কো দা গামা প্রথম ইউরোপিয়ান হিসেবে লিসবন থেকে সাগরপথে ভারতের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করেন। তিনি পরের বছর ১৪৯৮ সালের ২০ মে ভারতের কালিকট (কেরালা) বন্দরে পৌঁছান।
১৮১৭- কলকাতা বুক সোসাইটি স্থাপিত হয়।
১৮৫৮- সিপাহী বিদ্রোহের অবসানের পর লর্ড ক্যানিং ‘শান্তি’ ঘোষণা করেন।
১৯১৮- ভারতের সংবিধান সংস্কার সম্পর্কে মন্টেগু-চেমসফোর্ড রিপোর্ট প্রকাশিত হয়।
১৯২০- কেনিয়া অধিগ্রহণ করে ব্রিটেন।
২০০৬- দীর্ঘ ৪৪ বছর বন্ধ থাকার পর চীনের সঙ্গে বাণিজ্যের উদ্দেশ্যে নাথুলা পাস সীমান্তপথ খুলে দেয় ভারত। এই সীমান্তপথটি ভুটান-চীন-ভারতের সংযোগস্থলে। এই পথ দিয়েই কৈলাস সরোবরে তীর্থযাত্রায় যায় পূণ্যার্থীরা।

জন্ম :
১৯১৪- ভারতীয় বাঙালি কমিউনিস্ট নেতা ও পশ্চিমবঙ্গের নবম মুখ্যমন্ত্রী জ্যোতি বসু।
১৯৭২- ভারতীয় ক্রিকেট দলের সাবেক অধিনায়ক ও ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলী।
বাঁহাতি ক্রিকেটার গাঙ্গুলী অদ্যাবধি ভারতের সফলতম অধিনায়ক বলে বিবেচিত। তার অধিনায়কত্বে ভারত ৪৯টি টেস্ট ম্যাচের মধ্যে ২১টি ম্যাচে জয়লাভ করে। ২০০৩ সালের ক্রিকেট বিশ্বকাপে তার অধিনায়কত্বেই ভারত ফাইনালে পৌঁছে যায়। দাদা, মহারাজ, প্রিন্স অব কলকাতাসহ নানা উপাধিতে খ্যাত এ ক্রিকেটার টেস্ট ওয়ানডে মিলিয়ে সাড়ে ১৮ হাজারেরও বেশি রানের মালিক। গাঙ্গুলী কেবল একজন আগ্রাসী মনোভাবাপন্ন অধিনায়কই ছিলেন না, তার অধীনে যেসব তরুণরা খেলতেন, তাদের ক্যারিয়ারের উন্নতির জন্যও তিনি অনুপ্রেরক হিসেবে কাজ করতেন।
১৯৮১- রুশ প্রমিলা টেনিস তারকা আনাস্তাসিয়া মিসকিনা।

বিজ্ঞাপন

মৃত্যু
১৯৪৮- দক্ষিণ আফ্রিকান ক্রিকেটার ডেভ নোর্স।
১৯৯৪- উত্তর কোরিয়ার জনক কিম ইল-সাং।
১৯১২ সালের ১৫ এপ্রিল জন্ম নেওয়া ইল-সাং দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের পর উত্তর কোরিয়া প্রতিষ্ঠা করে এর সর্বোচ্চ নেতা পদে আসীন হন এবং মৃত্যুর আগ পর্যন্ত দায়িত্ব পালন করেন। তার মৃত্যুর পর ছেলে কিম জং ইল কোরিয়ার নেতা হন। ২০১১ সালে জং ইলের মৃত্যুর পর থেকে দায়িত্ব পালন করে আসছেন দৌহিত্র কিম জং উন।
১৯৯৭- বাংলাদেশের ষষ্ঠ রাষ্ট্রপতি আবু সাদাত মোহাম্মদ সায়েম।
২০১১- বাংলাদেশি চিত্রশিল্পী আমিনুল ইসলাম।

Facebook Comments Box

Call Now ButtonContact us

বাংলা কাগজ এ আপনাকে স্বাগতম।

X
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial
Facebook91m
Twitter38m
LinkedIn4m
LinkedIn
Share