অক্টোবর ২৮, ২০২১

The Bangla Kagoj

বিশ্বের সব দেশে, সব ভাষায়, সব সময় । বাংলা কাগজ । আপনার কাগজ । banglakagoj.net (আমাদের কোনও জাতীয় পত্রিকা নেই)।

মিয়ানমারে ১২৬ লাশ উদ্ধার, বাড়তে পারে মৃতের সংখ্যা

বৃহস্পতিবার মিয়ানমারের খনিতে ভূমিধসের ঘটনায় ১২৬ লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। ছবিতে একটি লাশ উদ্ধার করে নিয়ে যেতে দেখা যাচ্ছে- ইন্টারনেট।

মে থেকে অক্টোবর পর্যন্ত সময় মিয়ানমারে বর্ষা মৌসুম চলে। এ সময়ে হপাকান্তের সব খনিতে কাজ বন্ধ রাখার কথা থাকলেও বাস্তবে তা হয় না।

নিজস্ব প্রতিবেদন, বাংলা কাগজ : মিয়ানমারে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১২৬ জনে। ভূমিধসের পর এ পরিমাণ লাশ উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের খবরে বলা হয়- কাচিন রাজ্যের জেড পাথর সমৃদ্ধ হপাকান্ত এলাকায় বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) ভোরে ভূমিধসের এ ঘটনা ঘটে।

ওপেন পিট পদ্ধতিতে খোড়া এসব খনিতে রত্নপাথর খোঁজার সময় মাটি, কাদা ও খনি বর্জ্য সরিয়ে স্তূপ করে রাখা হয়, যাকে বলে টেইলিং।

নিউইয়র্ক টাইমসের খবরে বলা হয়, ভারি বর্ষণের মধ্যে শ্রমিকরা পাথর সংগ্রহ করার সময় আড়াইশ ফুট উঁচু বিশাল এক কাদার স্তূপ ধসে পড়ে।

ফলে খনিতে জমে থাকা বৃষ্টির পানিতে জল-কাদার বিশাল ঢেউ সৃষ্টি হয় এবং বহু শ্রমিক এর নিচে চাপা পড়েন।

অনেকেই এখনও নিখোঁজ রয়েছে জানিয়ে মিয়ানমারের মন্ত্রী উ তিন সোয়ে বলেছেন, মৃতের সংখ্যা আরও বাড়বে বলে তাঁরা আশঙ্কা করছেন।

বিজ্ঞাপন

বিশ্বে সবুজ রংয়ের প্রায়-স্বচ্ছ রত্ন পাথর জেডের সবচেয়ে বড় উৎস মিয়ানমার। সেখানে উত্তোলিত জেড পাথরের বেশিরভাগটাই প্রতিবেশী দেশ চীনে রপ্তানি হয়।

দেশটির উত্তরাঞ্চলীয় কাচিন প্রদেশ আর হপাকান্ত জেডের খনির জন্য বিখ্যাত। কিন্তু সরকারের কার্যকর তদারকি না থাকায় সেখানে প্রায়ই প্রাণঘাতী ভূমিধস ও বিভিন্ন দুর্ঘটনা ঘটে।

মে থেকে অক্টোবর পর্যন্ত সময় মিয়ানমারে বর্ষা মৌসুম চলে। এ সময়ে হপাকান্তের সব খনিতে কাজ বন্ধ রাখার কথা থাকলেও বাস্তবে তা হয় না।

Facebook Comments Box

Contact us

বাংলা কাগজ এ আপনাকে স্বাগতম।

X
Social media & sharing icons powered by UltimatelySocial
Facebook91m
Twitter38m
LinkedIn4m
LinkedIn
Share